1. mehedi22h@gmail.com : admin :
  2. ibrahimkholil607@gmail.com : Ibrahim Hossain : Ibrahim Hossain
  3. rejoanullah668@gmail.com : rejoan ullah : rejoan ullah
শিরোনাম :
কলারোয়ায় একটি ভাঙ্গাড়ী দোকানে অগ্নিককান্ড ২০০ টাকার জন্য খুন করেছি সাতক্ষীরার কলারোয়ার বালিয়াডাঙ্গা বাজারে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড।। ৬টি দোকান পুড়ে ছাই সাতক্ষীরায় বন্ধুর হাতে বন্ধু খুন শহরের কাটিয়া মাঠপাড়ায় মাস্কহীন দু’জনকে মোবাইল কোর্টে ১ হাজার টাকা জরিমানা করোনার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন সাতক্ষীরা’র দুই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শ্যামনগরে হরিণের চামড়া উদ্ধার জামায়াতের সাবেক আমির মকবুল আহমাদের অবস্থা সংকটাপন্ন মামুনুলকে ছিনিয়ে নিল হেফাজত কর্মীরা নারায়ণগঞ্জে রিসোর্টে ‘দ্বিতীয় স্ত্রী’সহ অবরুদ্ধ মাওলানা মামুনুল সোনারগাঁও এ মামুনুল হক কে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে

কলারোয়ায় বিভিন্ন অনিয়মের মধ্য দিয়ে শেষ হলো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ম্যারাথন ঢাকা ২০২১

  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৪৯ বার

কলারোয়া প্রতিনিধি : বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ম্যারাথন ঢাকা ২০২১ সারাদেশের ন্যায় কলারোয়ায় ও শুরু হয় আজ
২৭ ফেব্রুয়ারি(শনিবার)সকাল ১০টায়।ঝাঁপাঘাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে কলারোয়া বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজ গেট পর্যন্ত ৫ কিলোমিটার মিনি ম্যারাথন অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন কলারোয়া প্রশাসন ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থা ও বিভিন্ন ক্রিড়া সংগঠন।ব্যাপক অনিয়ম ও বিশৃংখলার মধ্য দিয়ে শেষ হয় কলারোয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ম্যারাথন ঢাকা ২০২১।
দৌড় প্রতিযোগিদের অভিযোগের ভিত্তিতে জানা যায় বাঁশি দেওয়ার সাথে সাথে আমরা দৌড় দিতে শুরু করে কলারোয়া ফায়ার সার্ভিস এবং প্রশাসন তাদের রাস্তা এগিয়ে নিয়ে যেতে থাকে। আমরা প্রায় আড়াই কিলোমিটার দৌড়ানোর পড়ে পরে জানতে পারি যে এখনো বাসি দেওয়া হয়নি কিন্তু আমরা বাঁশি শুনে দৌড়াতে শুরু করি ততক্ষণে আমরা প্রায় ৭০/৮০ জন প্রতিযোগী এত দূর অতিক্রম করেছি।কিন্তু আয়োজক কারীরা তাদের কে না জানিয়ে বা ফায়ার সার্ভিসকে আবার মূলকেন্দ্রে না ডেকে দৌড়প্রতিযোগীদের ডিসকোয়ালিফাই করে দেয়,যা একবারে অমানবিক। প্রতিযোগিরা সাংবাদিকদেরকে জানান আমরা বঙ্গবন্ধু কলেজে এসে জানতে পাড়ি আমরা ডিসকোয়ালিফাই হয়েছি। ৫ কিলোমিটার দৌড়ে এসে এটা একটি মর্মান্তিক ব্যাপার বলে উল্লেখ করেন দৌড়ে অংশগ্রহণ করা প্রতিযোগিরা
এতে করে প্রতিযোগিতার মধ্যে একটি বিশৃংখলার সৃষ্টি হতে দেখা যায়। কলারোয়া পুলিশ উপস্থিত থেকে বিষয়টি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করে আর বার বার প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগিরা বিভিন্ন রকম হইচই মিছিল মেইনরোড গাড়ি চলাচল বন্ধের চেষ্টা করতে থাকে। কলারোয়া থানা পুলিশ সুদক্ষতার সাথে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। কিন্তু ম্যানেজিং কমিটি আয়োজক কমিটি পরিচালনা কমিটি কোনরকম দেখা যায়নি প্রতিযোগীদের পাশে। প্রতিযোগিতার নিয়ন্ত্রণ করে নিয়ে আসা মাইক বাহি একটি গাড়িতে বক্তব্য দিতে দিতে যাওয়া ব্যক্তি খারাপ আচরণে বিপরীতমুখী ধাবিত হতে থাকে ডিসকোয়ালিফাই প্রতিযোগিরা তারা পরিস্থিতি অবনতি ঘটাতে থাকে আয়োজন কমিটির স্বেচ্ছাসেবীরা।সেখানে কলারোয়া থানা পুলিশ আবারও শান্ত করে প্রতিযোগিদের।
বিভিন্ন অভিভাবক অভিযোগ করতে থাকে একটি পরিকল্পিত পাতাল খেলার আয়োজন করেছে। দৌড়ে অংশগ্রহণ করা প্রতিযোগিতা অসুস্থ হতে দেখা যায় রাস্তাতে কিন্তু আয়োজকদের সেখানে দেখা মেলেনি সাধারন মানুষ ভ্যান মটর সাইকেল যোগে বিভিন্ন প্রতিযোগিদের হাসপাতালে নিতে দেখা যায়।ছিল একটি অ্যাম্বুলেন্স ও মেডিকেল টিম কিন্তু ছিলনা কোন সার্ভিস। অনেক প্রতিযোগী অসুস্থ হলেও তারা কোন মেডিকেল এম্বুলেন্স সেবা পায়নি।
অ্যাম্বুলেন্সে থাকা ড্রাইভার সাথে কথা বললে তিনি জানান আমাদেরকে কেউ অবগত করেন নি তবে কেন নেয়া হয়েছিল এমবুলেস? কোন উত্তর দিতে পারেন নি অ্যাম্বুলেন্স ড্রাইভার ম্যারাথনে অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগিরা পানি কিংবা রাস্তায় সুরক্ষা দেয়া হয়নি। চলাচল করতে দেখা গেছে স্থানীয় পরিবহন ভ্যান ইজিবাইক,ট্রলি, সিএনজি,ট্রাকসহ বিভিন্ন ভারী যানবাহন, এগুলোর ভিতর দিয়েই দুর্ঘটনা কে জয় করে দৌড় দিতে হয়েছে এই ম্যারাথনে অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগীদের। সেনাবাহিনী দ্বারা পরিচালিত হওয়ার কথা থাকলেও সেনাবাহিনীর কোন টিমকে দেখা যায়নি অনুষ্ঠানটিতে। ছিলনা কোন পানি, অসুস্থ চিকিৎসার ব্যবস্থা।এসব তথ্য আমাদেরকে জানিয়েছেন বিভিন্ন দৌড় প্রতিযোগিতা আরও দেখা যায় বিভিন্ন প্রতিযোগি মোটর সাইকেল, ভ্যান ও সিএনজি মাধ্যমে এসে কলারোয়া বয়েজ স্কুলের রোডে ত্রিমাথা মোড়ে নেমে সেখান থেকে দৌড় দিতে দেখা গিয়েছে বলে জানিয়েছেন সাংবাদিকদেরকে। কিন্তু গাড়িতে আসুক আর দৌড়ে আসুক সেটা তাদের দেখার দরকার নেই বলেন বঙ্গবন্ধু কলেজের সামনে ফার্স্ট সেকেন্ড নিয়ন্ত্রণকারী ব্যক্তিবর্গ। কোন প্রতিযোগিদের ছিলনা বিশেষ কোন পোশাকের ব্যবস্হা। অনুষ্ঠানের অন্যতম ব্যক্তিত্ব জাহিদ খান চৌধুরী সাংবাদিকদেরকে জানান আমাদের কিছু ভুল ছিল আজকের ম্যারাথন টিতে নতুন ম্যারাথন বিষয়ে অদক্ষ স্বীকার করে তিনি বলেন আমরা এখানে ফার্স্ট সেকেন্ড বিষয়টি দুই পক্ষকে নিয়ে যাচাই-বাছাই করে একটি নির্ধারণ করবো বলে জানিয়েছেন সাংবাদিকদেরকে। তিনি আরো জানিয়েছেন সন্তুষ্ট পূর্ণ একটি সিদ্ধান্ত নেবে কলারোয়া প্রশাসন। এসকল বিষয়ে কলারোয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মৌসুমী জেরিন কান্তা মুঠোফোনে জানান আমি এ বিষয়ে এখনই কিছু বলতে পারছিনা আপনাদেরকে পরে সিদ্ধান্ত জানানো হবে,বলে ফোন কেটে দেন।

খবরটি শেয়ার করুন..

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2019 news satkhira
Site Customized By NewsTech.Com